• শনিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২১, ০৪:৪৮ অপরাহ্ন
তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের নিবন্ধনপ্রাপ্ত নিউজপোর্টাল
শিরোনাম :
যুক্তরাষ্ট্র থেকে আরও ১৭ লাখ ৯০ হাজার ডোজ ফাইজারের টিকা পেল বাংলাদেশ বাংলাদেশসহ ১৪টি দেশে ৭৫% ফ্লাইট চালু করবে ভারত পঞ্চম ধাপে ঝিনাইগাতীর ৭টিসহ ৭০৭ ইউপির নির্বাচন ৫ জানুয়ারি নকলা ও নালিতাবাড়ীর ইউপি নির্বাচনে কেন্দ্রে কেন্দ্রে পাঠানো হচ্ছে সরঞ্জাম ঝিনাইগাতীতে প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদে ইউপি চেয়ারম্যানের সংবাদ সম্মেলন ঝিনাইগাতীতে র‌্যাবের অভিযানে ৩৮৫ পিস ইয়াবাসহ ব্যবসায়ী গ্রেফতার শিক্ষার্থীদের জন্য বিআরটিসি বাসের ভাড়া অর্ধেক হচ্ছে : সেতুমন্ত্রী দুর্দান্ত মুশফিক-লিটনে চট্টগ্রাম টেস্টের প্রথম দিন বাংলাদেশের সেঞ্চুরিতেই জবাব দিলেন লিটন শ্রীবরদীতে উপজেলা ও পৌর বিএনপির দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত

ঝিনাইগাতীতে ৩ বছরেও সংস্কার হয়নি মালিঝি নদীর বিধ্বস্ত বেড়ীবাঁধ, ১৫ গ্রামের মানুষের দুর্ভোগ

/ ৫২৩ বার পঠিত
প্রকাশকাল : বৃহস্পতিবার, ৮ অক্টোবর, ২০২০

খোরশেদ আলম,স্টাফ রিপোর্টার, ঝিনাইগাতী : শেরপুরের ঝিনাইগাতী উপজেলার পাগলারমুখ মালিঝি নদীর বিধ্বস্ত বেড়ীবাঁধ ৩ বছরেও সংস্কার হয়নি। ফলে ওই পথে যাতায়াতকারী ১৫ গ্রামের মানুষের চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।
জানা যায়, পাগলারমুখ-তিনানী রাস্তার মালিঝি নদীর ওই বেড়ীবাঁধটি ২০১৭ সালে অবিরাম বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলের পানির তোড়ে বিধ্বস্ত হয়ে যোগাযোগ ব্যবস্থা বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। কিন্তু প্রশাসনের পক্ষ থেকে যোগাযোগব্যবস্থা পুনঃস্থাপনের জন্য আর কোন প্রকার পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়নি। যোগাযোগ ব্যবস্হা পুনঃস্হাপনের জন্য এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে একটি বাঁশের সাঁকো নির্মাণ করা হয়। ওই সাঁকোর উপর দিয়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে পারাপার হতে হচ্ছ পথচারীদের। ঘাগড়া কামারপাড়া গ্রামের শামসুল হক, শফিউল্লাহ, আলামিন, আয়বালীসহ আরও অনেকেই জানান, ওই পথে হাতীবান্ধা, ঘাগড়া কামারপাড়া, প্রধানপাড়া, মিরপাড়া, চকপাড়া, মোল্লাপাড়া, পাগলারমুখ, পাগলারপাড়, তিনানী, সুরিহারা, বেলতৈল, কাঠালতলীসহ প্রায় ১৫ টি গ্রামের মানুষ যাতায়াত করে থাকে।

Shamol Bangla Ads

হাতীবান্ধা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান নাছির উদ্দিন জানান, বিধ্বস্ত বেড়িবাঁধটি সংস্কারের অভাবে ওই পথে যাতায়াতকারী শত শত মানুষের চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। এলাকায় উৎপাদিত কৃষিপণ্য সঠিক সময়ে বাজারজাত করতে পারছেন না। গবাদিপশু পারাপারে বিড়ম্বনার শিকার হতে হচ্ছে কৃষকদের। কোমলমতি শিশু কিশোররা স্কুল কলেজে যাতায়াতের সময় মাঝেমধ্যেই দুর্ঘটনার শিকার হতে হচ্ছে। শুধু তাই নয় বিধ্বস্ত বেরিবাধেঁর ভাঙা অংশ দিয়ে পানির সাথে বালু প্রবেশ করে ফসলি জমি চাষ আবাদের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। হাতীবান্ধা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল আমিন দোলা জানান, বিধ্বস্ত বাধঁটি সংস্কারের বিষয়ে বিভিন্ন সময় উপজেলা উন্নয়ন ও সমন্বয় কমিটির সভায় আলোচনাও হয়েছে কিন্তু কোনো কাজে আসেনি।
এ ব্যাপারে ঝিনাইগাতী উপজেলা প্রকৌশলী মোজাম্মেল হক বলেন, বাধঁটি নদীর পাড় ঘেঁষে হওয়ায় এলজিইডি’র পক্ষ থেকে কোন পদক্ষেপ গ্রহণ করা সম্ভব হয়নি, এটা পানি উন্নয়ন বোর্ডের দায়িত্ব।
ঝিনাইগাতী উপজেলা চেয়ারম্যান এস এম আব্দুল্লাহেল ওয়ারেজ নাইম, বলেন, বেড়ীবাঁধটি সংস্কারের বিষয়ে পানি উন্নয়ন বোর্ডের সাথে আলোচনা হয়েছে। পানি উন্নয়ন বোর্ডের পক্ষ থেকে বেড়িবাধঁটি সংস্কারের জন্য প্রস্তাবনা পাঠানো হয়েছে। শিগগিরই বাঁধটি সংস্কার ব্যবস্থা নেয়া হবে।


এই বিভাগের আরও খবর
Shamol Bangla Ads

error: কপি হবে না!
error: কপি হবে না!