• শনিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২১, ০৪:৫১ অপরাহ্ন
তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের নিবন্ধনপ্রাপ্ত নিউজপোর্টাল
শিরোনাম :
যুক্তরাষ্ট্র থেকে আরও ১৭ লাখ ৯০ হাজার ডোজ ফাইজারের টিকা পেল বাংলাদেশ বাংলাদেশসহ ১৪টি দেশে ৭৫% ফ্লাইট চালু করবে ভারত পঞ্চম ধাপে ঝিনাইগাতীর ৭টিসহ ৭০৭ ইউপির নির্বাচন ৫ জানুয়ারি নকলা ও নালিতাবাড়ীর ইউপি নির্বাচনে কেন্দ্রে কেন্দ্রে পাঠানো হচ্ছে সরঞ্জাম ঝিনাইগাতীতে প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদে ইউপি চেয়ারম্যানের সংবাদ সম্মেলন ঝিনাইগাতীতে র‌্যাবের অভিযানে ৩৮৫ পিস ইয়াবাসহ ব্যবসায়ী গ্রেফতার শিক্ষার্থীদের জন্য বিআরটিসি বাসের ভাড়া অর্ধেক হচ্ছে : সেতুমন্ত্রী দুর্দান্ত মুশফিক-লিটনে চট্টগ্রাম টেস্টের প্রথম দিন বাংলাদেশের সেঞ্চুরিতেই জবাব দিলেন লিটন শ্রীবরদীতে উপজেলা ও পৌর বিএনপির দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত

শেরপুরে বিক্রি হওয়া শিশু সন্তানকে উদ্ধার করে মায়ের কোলে ফিরিয়ে দিল পুলিশ

/ ৭৩২ বার পঠিত
প্রকাশকাল : বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২০

মায়ের আত্মহত্যার চেষ্টা, পাষণ্ড পিতা আটক

স্টাফ রিপোর্টার ॥ শেরপুরে নিজ ঔরসজাত সন্তানকে অন্যত্র বিক্রি করে দেয়ার অভিযোগ উঠেছে সুলতান মিয়া এক পাষ- বাবার বিরুদ্ধে। অন্যদিকে ওই ঘটনায় রাগে-ক্ষোভে আত্মহত্যার চেষ্টা চালিয়েছে ওই সন্তানের হতভাগীনি মা সুমা আক্তার। ৩০ সেপ্টেম্বর বুধবার দুপুরে খবর পেয়ে সদর উপজেলার ভাতশালা ইউনিয়নের সাপমারী এলাকা থেকে আত্মহত্যার চেষ্টা করা মা সুমা আক্তার এবং স্থানীয় কানাশাখোলা এলাকায় জনৈক শফিকের কাছে বিক্রি করে দেয়া শিশুকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেছে পুলিশ। সেইসাথে শিশুটির বাবা সুলতান মিয়াকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে।ু অন্যদিকে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) আমিনুল ইসলাম। ওই ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

Shamol Bangla Ads

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, সাপমারী গ্রামের নাজিম উদ্দিনের ছেলে সুলতান মিয়া ২ স্ত্রী থাকার পর গত দু’বছর পূর্বে গাজীপুর জেলার মাওনা এলাকার আব্দুল আজিজের মেয়ে সুমা আক্তারকে বিয়ে করে বাড়িতে নিয়ে আসে। তাদের দাম্পত্য ও সংসার জীবনে সুমা আক্তার গর্ভবতী হয় এবং প্রায় ৪ মাস আগে জেলা সদর হাসপাতালে সিজারের মাধ্যমে একটি ছেলে সন্তান জন্মগ্রহণ করে। এদিকে সিজারের জন্য খরচ হওয়া ২২ হাজার টাকা কয়েকদিন পর স্ত্রী সুমা আক্তারের কাছে দাবি করে পাষন্ড স্বামী সুলতান এবং টাকা না দিলে তার শিশু সন্তানকে বিক্রি করে টাকা আদায় করার হুমকি দেয়। পরে কানাশাখোলা এলাকার কাপতুল মন্ডলের ছেলে শফিকের কাছে ওই শিশু সন্তানকে ৯১ হাজার টাকা বিক্রি করে দেয় সুলতান। যদিও শফিকের দাবি, সে শিশুটিকে ক্রয় করেনি, বরং তার সন্তান না থাকায় লালন-পালন করতে দত্তক নিয়েছিল।
এদিকে বুধবার দুপুরে শিশুটির মা সুমা আক্তার তার শিশুর খোঁজে শফিকের বাসায় গেলে শফিক শিশুটি তার বাসায় নেই বলে সুমাকে তাড়িয়ে দেয়। পরে ভগ্ন হৃদয়ে ফিরে গিয়ে স্থানীয় কানাশাখোলা বাজারে ইউরিয়া সার খেয়ে সুমা আক্তার আত্মহত্যার চেষ্টা করে। পরে স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দিলে সুমাকে সেখান থেকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে পুলিশ। পরে বিকেলে অভিযান চালিয়ে কানাশাখোলা এলাকা থেকে সেই শিশুকে উদ্ধার করে মায়ের কোলে ফিরিয়ে দেয়। সন্ধ্যায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত উদ্ধার হওয়া শিশু সন্তানকে বুকে নিয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে মা সুমা আক্তার।
এ ব্যাপারে শেরপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ আল মামুন জানান, শিশু বিক্রির খবর পেয়ে দ্রুত অভিযান চালিয়ে শিশুটিকে উদ্ধার করে তার মায়ের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। সেইসাথে পিতা সুলতান মিয়াকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


এই বিভাগের আরও খবর
Shamol Bangla Ads

error: কপি হবে না!
error: কপি হবে না!