প্রকাশকাল: 14 ফেব্রুয়ারী, 2019

নালিতাবাড়ীতে বসতঘর থেকে নববধূর লাশ উদ্ধার ॥ স্বামী পলাতক

নালিতাবাড়ী (শেরপুর) প্রতিনিধি ॥ শেরপুরের নালিতাবাড়ীতে তাসলিমা বেগম (২০) নামে এক নববধূর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ১৪ ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলার চরপাড়া এলাকায় বসতঘর থেকে ওই লাশ উদ্ধার করা হয়। তাসলিমা উপজেলার গোবিন্দনগর নামাছিটপাড়া গ্রামের আনিসুর রহমানের স্ত্রী ও পার্শ্ববর্তী খালভাংগা গ্রামের মোফাজ্জল হোসেনের মেয়ে। এদিকে লাশ উদ্ধারের পর থেকেই পলাতক রয়েছে স্বামী আনিসুর রহমান।
জানা যায়, পারিবারিকভাবে প্রায় আড়াই মাস আগে নালিতাবাড়ী উপজেলার গোবিন্দনগর নামাছিটপাড়া গ্রামের ছফর উদ্দিনের ছেলে আনিসুর রহমানের সাথে পার্শ্ববর্তী খালভাংগা গ্রামের মোফাজ্জল হোসেনের মেয়ে তাসলিমা খাতুনের বিয়ে হয়। আনিসুর রহমান নববধূ তাসলিমাকে নিয়ে চরপাড়া গ্রামে নানা হাবিল উদ্দিনের বাড়িতে বসবাস করতো। বিয়ের প্রথম দিকে তাদের সংসার জীবন ভালোই চলছিল। কিন্তু কিছুদিন পর থেকেই যৌতুকের টাকা নিয়ে দাম্পত্য জীবনে স্বামী-স্ত্রীর সাথে প্রায়ই ঝগড়া হতো তাদের। বুধবার রাতে দুজনই খাওয়া দাওয়া করে নিজ ঘরে ঘুমাতে গেলে পরদিন সকালে ঘরের মেঝেতে তাসলিমার লাশ পড়ে দেখতে দেখে থানা পুলিশে খবর দেয় পরিবারের লোকজন। খবর পেয়ে পুলিশ তাসলিমার লাশ উদ্ধার করে। ওই ঘটনার পর থেকেই স্বামী আনিসুর রহমান পলাতক রয়েছে।
তাসলিমার মা খুকী বেগম জানান, ৩/৪ দিন আগে জামাই আনিসুর আমার মেয়ে তাসলিমার কাছে কয়েক হাজার টাকা যৌতুক দাবি করেছিল। ওই টাকা দিতে না পারায় তাসলিমাকে মাঝে-মধ্যেই নির্যাতন করত। আমাদের ধারণা, আমার মেয়েকে আনিস পরিকল্পিতভাবে হত্যা করেছে।
এ ব্যাপারে নালিতাবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবুল খায়ের বলেন, এটি যৌতুকের জন্য হত্যা নাকি আত্মহত্যা তা এখনই বলা যাচ্ছে না। তবে লাশের গলায় দাগ রয়েছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলেই নিশ্চিত হওয়া যাবে। তিনি আরও বলেন, ওই ঘটনায় মেয়ের বাবা মোফাজ্জল হোসেন বাদী হয়ে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

আপনার মতামত দিন

XHTML: You can use these html tags: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <s> <strike> <strong>

error: Content is protected !!