• শুক্রবার, ০৫ মার্চ ২০২১, ০৬:৩৭ পূর্বাহ্ন
/ সমকালিন নিবন্ধ
স্বাধীন বাংলাদেশের মহান স্থপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান শুধুমাত্র রাজনীতির প্রবাদপুরুষই নন; তিনি ছিলেন সত্যিকারার্থে একজন শিক্ষানুরাগী ও বিজ্ঞানমনস্ক ব্যক্তিত্ব। বাঙালি জাতির ভাগ্যোন্নয়নে তিনি সারাজীবন নিরলস শ্রম দিয়ে গেছেন; করে বিস্তারিত...
প্রতি বছর বাঙালি জাতির দ্বারে গৌরবময় মহান বিজয় দিবস আসে নতুন সম্ভাবনা নিয়ে। কিন্তু এবার এসেছে নিদারুন করোনা কালে। এ দিনটি আমাদের জন্য একটি আত্মসমীক্ষার দিনও বটে। ১৯৭১ এর মহান
আমরা এমন এক সময়ে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উদ্যাপন করছি যখন সারাবিশ্বে করোনা মহামারীর (কোভিড-১৯) দ্বিতীয় ঢেউ আছড়ে পড়ছে। যেসব রাষ্ট্র নিজেদেরকে মহাশক্তিশালী মনে করে থাকে তারাও এই মহামারীর কবলে পড়ে
বঙ্গবন্ধু কন্যা ও আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আনুষ্ঠানিকভাবে কখনো জন্মদিন পালন করেন না। আমরা তারিখটা খেয়াল রাখি, তার জন্মদিনে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানাই। কিন্তু জন্মদিন ঘটা করে পালন করেন না।
মনজুরুল আহসান বুলবুল বাঙালিকে কি সংরক্ষণের প্রয়োজন হয়ে পড়েছে? সংরক্ষণ তাদেরই প্রয়োজন, যারা লুপ্তপ্রায়। বাঙালি কি তাহলে লুপ্তপ্রায় যে তাদের সংরক্ষণ করতে হবে? ওপার বাংলায় এ নিয়ে বিস্তর বিতর্ক। বাঙালি
জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং বাংলাদেশের জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম- বয়সে বঙ্গবন্ধু নজরুলের চেয়ে একুশ বছরের ছোট ছিলেন। বয়সের এই ব্যবধান সত্ত্বেও দুই বাঙালির চিন্তায় ছিল বাঙালির
শেরপুরের সন্তান আন্তর্জাতিক পুরস্কারপ্রাপ্ত সৌখিন আলোকচিত্রশিল্পী এসএ শাহরিয়ার রিপন এর অকাল মৃত্যুতে স্মরণ সভা ও দোওয়া মাহফিলের আয়োজন করেছে শেরপুর সাংস্কৃতিক সংসদ। ৫ আগস্ট বুধবার বিকেলে শেরপুর পৌর টাউন হল
মনজুরুল আহসান বুলবুল দাবিটি অনেক দিনের। বিষয়টি জরুরী, ইতিহাসের স্বার্থেই। কবিরা কি অন্তর্যামী হন? দেশের তখ্তে তখন লেবাস পাল্টে সেনা শাসক। জাতির জনকের খুনে রাঙ্গা বাংলায় ঘাতকদের উল্লাস। ১৬ জুলাই