• বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ০৪:৫৬ পূর্বাহ্ন

৪ মাসে বিশ্ব পর্যটনে ক্ষতি ২০ হাজার কোটি ডলার

শ্যামলবাংলা ডেস্ক
/ ৫৮৯ বার পঠিত
প্রকাশকাল : রবিবার, ৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০

শ্যামলবাংলা ডেস্ক : করোনা মহামারির কারণে এ বছরের জানুয়ারি থেকে এপ্রিল সময়ে আন্তর্জাতিক পর্যটন খাত হারিয়েছে প্রায় ১৯ হাজার ৫শ কোটি ডলার। করোনায় সীমান্ত কড়াকাড়ি আরোপ করায় গত বছর থেকেই বিশ্বজুড়ে পর্যটক আগমন কমে গেছে, এ বছর প্রায় বন্ধই ছিল। জাতিসংঘের বিশ্ব পর্যটন সংস্থা (ইউএনডাব্লিউটিও) এক বিবৃতিতে ওই তথ্য জানায়।

বিবৃতিতে বলা হয়, বছরের প্রথম ৪ মাসে আন্তর্জাতিক পর্যটক আগমন কমেছে প্রায় ১৮ কোটি। এক বছর আগের একই সময়ের তুলনায় যা ৪৪ শতাংশ কম। যেখানে এপ্রিল মাসকে পর্যটনের জন্য সবচেয়ে ব্যস্ত সময় মনে করা হয়, সেখানে এ বছর করোনার কারণে ওই সময়ে পর্যটক আগমন কমেছে প্রায় ৯৭ শতাংশ। বিশ্বজুড়ে প্রায় শতভাগ গন্তব্যেই করোনার কারণে চলাচলে বিধি-নিষেধের আওতায় ছিল।
ইউএনডাব্লিউটিও আরো জানায়, আঞ্চলিক হিসাবে দেখা যায়, এশিয়া ও প্যাসিফিক অঞ্চল ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে জানুয়ারি থেকে এপ্রিল এই ৪ মাসে। এ সময়ে এই অঞ্চলে আন্তর্জাতিক পর্যটক আগমন কমে ৫১ শতাংশ। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ পর্যটক কমেছে ইউরোপে ৪৪ শতাংশ। এরপর মধ্যপ্রাচ্যে কমেছে ৪০ শতাংশ, আমেরিকায় কমেছে ৩৬ শতাংশ এবং আফ্রিকায় কমেছে ৩৫ শতাংশ। এই হ্রাস এক বছর আগের একই সময়ের তুলনায়।
পর্যটক গমনে কয়েক বছর যাবৎই জোরালো প্রবৃদ্ধি অর্জন করছে এশিয়া অ্যান্ড প্যাসিফিক অঞ্চল। বিপুল চীনা নাগরিকের ভ্রমণের কারণে এশিয়ার দেশগুলোতে পর্যটক বাড়ে। কিন্তু গত বছরের শেষ দিকে করোনাভাইরাসের শুরুই হয় চীনে। ফলে পুরো এশিয়ায় এই বছর পর্যটন খাতে স্থবিরতা নেমে আসে।
ইউএনডাব্লিউটিও জানায়, করোনার এ মহামারি যদি সেপ্টেম্বর পর্যন্ত অব্যাহত থাকে তবে এই বছর আন্তর্জাতিক পর্যটক আগমন কমবে ৭০ শতাংশ। আর মহামারি যদি ডিসেম্বর পর্যন্ত অব্যাহত থাকে তবে পর্যটক আগমন কমবে ৭৮ শতাংশ। সূত্র : পিলস্টার


এই বিভাগের আরও খবর