ads

বুধবার , ১ নভেম্বর ২০১৭ | ৩১শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের নিবন্ধনপ্রাপ্ত অনলাইন নিউজ পোর্টাল
  1. ENGLISH
  2. অনিয়ম-দুর্নীতি
  3. আইন-আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. আমাদের ব্লগ
  6. ইতিহাস ও ঐতিহ্য
  7. ইসলাম
  8. উন্নয়ন-অগ্রগতি
  9. এক্সক্লুসিভ
  10. কৃষি ও কৃষক
  11. ক্রাইম
  12. খেলাধুলা
  13. খেলার খবর
  14. চাকরির খবর
  15. জাতীয় সংবাদ

শেরপুরে শান্তিপূর্ণভাবে জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষা শুরু ॥ প্রথম দিনেই অনুপস্থিত ৬১৯

শ্যামলবাংলা ডেস্ক
নভেম্বর ১, ২০১৭ ৭:৪০ অপরাহ্ণ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ শেরপুরে নকলমুক্ত পরিবেশে শান্তিপূর্ণভাবে জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষা শুরু হয়েছে। ১ নভেম্বর বুধবার সকাল ১০টা থেকে ১টা পর্যন্ত জেলায় জেএসসি ও জেডিসি মিলে ১৫টি কেন্দ্রে প্রথম দিনে ওই পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। এতে জেএসসিতে ১০ টি কেন্দ্রে ১৮ হাজার ৭২২ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে ১৮ হাজার ৩৫৫ জন এবং জেডিসিতে ৫টি কেন্দ্রে ৩ হাজার ৭১২ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে ৩ হাজার ৪৬০ জন অংশ নেয়। অর্থাৎ জেএসসিতে ৩৬৭ জন ও জেডিসিতে ২৫২ জন পরীক্ষার্থী অনুপস্থিত থাকে। তবে নকলমুক্ত পরিবেশ থাকায় জেলার কোথাও শিক্ষক বা পরীক্ষার্থী বহিস্কারের ঘটনা ঘটেনি।
সকালে ঝিনাইগাতী উপজেলায় ওই পরীক্ষার বিভিন্ন কেন্দ্র পরিদর্শন করেন স্থানীয় সংসদ সদস্য প্রকৌশলী একেএম ফজলুল হক চাঁন। এছাড়া জেলা সদরের বিভিন্ন কেন্দ্র পরিদর্শন করেন জেলা প্রশাসক ড. মল্লিক আনোয়ার হোসেন।
এ ব্যাপারে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সাধারণ শাখার দায়িত্বে থাকা সহকারী কমিশনার (নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট) মেজবাউল আলম ভূইয়া জানান, জেলার প্রতিটি কেন্দ্রেই শান্তিপূর্ণভাবে ও সুষ্ঠু পরিবেশে জেএসসি ও জেডিসির প্রথম দিনের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রতিটি কেন্দ্রেই একজন করে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট দায়িত্বে ছিলেন। এছাড়া স্ব-স্ব এলাকার প্রশাসনের কর্মকর্তাসহ স্থানীয় পুলিশ প্রশাসনের ব্যাপক তৎপরতা ছিল। নকলমুক্ত পরিবেশ থাকায় জেলার কোথাও শিক্ষক বা পরীক্ষার্থী বহিস্কারের ঘটনা ঘটেনি। তিনি আশা প্রকাশ করে বলেন, সবার সহযোগিতায় সবগুলোর পরীক্ষাই যেন সুষ্ঠুভাবে শেষ করা যায় সেজন্য জেলা প্রশাসন তৎপর রয়েছে।
ঝিনাইগাতী : ঝিনাইগাতী উপজেলায় জেএসসি ও জেডিসি প্রথম দিনের পরীক্ষা শান্তিপূর্ণভাবে শেষ হয়েছে। বুধবার সকালে হাজি অছিআমরুন্নেছা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শন করেন স্থানীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব প্রকৌশলী একেএম ফজলুল হক চাঁন ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফারহানা করিম। উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা গোলাম মোস্তফা জানান, এবার উপজেলায় জেএসসিতে ১ হাজার ১৩৯ জন ও জেডিসিতে ৪৬৮ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ গ্রহণ করছে।
নকলা : নকলায় ১ নভেম্বর বুধবার সকাল ১০টায় শান্তিপূর্ণভাবে জুনিয়র সার্টিফিকেট পরীক্ষা শুরু হয়ে কোন অনাকাঙ্খিত ঘটনা ছাড়াই প্রথম পরীক্ষা শেষ হয়েছে। প্রথম দিনের পরীক্ষায় জেএসসি এবং জেডিসিতে মোট ৬৪ পরীক্ষার্থী অনুপস্থিত ছিল। তার মধ্যে জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) পরীক্ষার্থী ৪৮ জন এবং জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষার্থী ১৬ জন ছিল অনুপস্থিত। স্কুল শাখার একটি কেন্দ্রসহ মোট ৫টি কেন্দ্রে ৩ হাজার ৪৯১ জন জেএসসি পরীক্ষার্থীর মধ্যে প্রথম পরীক্ষায় (বাংলা প্রথম পত্রে) পরীক্ষার্থী ছিলো ৩ হাজার ৩৫৭ জন; তার মধ্যে ৪৮ জন অনুপস্থিত। মাদরাসা শাখার একটি কেন্দ্রে ৭৩১ জন জেডিসি পরীক্ষার্থীর মধ্যে প্রথম পরীক্ষায় (কুরআন মাজীদ ও তাজভীদে) পরীক্ষার্থী ছিলো ৬৮৪ জন; তার মধ্যে অনুপস্থিত ছিলো ১৬ পরীক্ষার্থী। কোন অনাকঙ্খিত ঘটনা ছাড়াই উপজেলার ৬টি কেন্দ্রেই শান্তিপূর্ণভাবে প্রথম দিনের জেএসসি এবং জেডিসি পরীক্ষা শেষ হওয়ায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রাজীব কুমার সরকার কেন্দ্র পরিদর্শন শেষে কেন্দ্র সচিব ও সংশ্লিষ্টদের প্রতি সন্তুষ প্রকাশ করেছেন।

error: কপি হবে না!