ads

বুধবার , ২৭ আগস্ট ২০১৪ | ৪ঠা জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের নিবন্ধনপ্রাপ্ত অনলাইন নিউজ পোর্টাল
  1. ENGLISH
  2. অনিয়ম-দুর্নীতি
  3. আইন-আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. আমাদের ব্লগ
  6. ইতিহাস ও ঐতিহ্য
  7. ইসলাম
  8. উন্নয়ন-অগ্রগতি
  9. এক্সক্লুসিভ
  10. কৃষি ও কৃষক
  11. ক্রাইম
  12. খেলাধুলা
  13. খেলার খবর
  14. চাকরির খবর
  15. জাতীয় সংবাদ

সিরাজগঞ্জের বন্যা পরিস্থিতি অপরিবর্তিত

রফিকুল ইসলাম আধার , সম্পাদক
আগস্ট ২৭, ২০১৪ ৮:৪১ অপরাহ্ণ
সিরাজগঞ্জের বন্যা পরিস্থিতি অপরিবর্তিত

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি ঃ গতকয়েক দিন ধরে সিরাজগঞ্জের বন্যা পরিস্থিতি অপরিবর্তিত রয়েছে । গতকাল সিরাজগঞ্জে যমুনা নদীর পানি ১৩.৪৭ সেন্টিমিটার এবং বিপদ সীমার ১২ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হয় । বন্যায় জেলার কাজিপুর, সিরাজগঞ্জ সদর, চৌহালী, শাহজাদপুর ও বেলকুচি উপজেলার ৫০টি ইউনিয়নের প্রায় ২লক্ষ মানুষ পানি বন্দি হয়ে পড়েছে । জেলা প্রশাসন ও অন্যান্য মাধ্যমথেকে ত্রান বিতরন করা হলেও তা প্রয়োজনের তুলনায় একেবারেই কম বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা । জেলার চৌহালী উপজেলা চেয়ারম্যান মেজর (অবঃ) আব্দুল্লাহ াাল মামুন বলেন,চৌহালী উপজেলার ৭টি ইউনিয়ন বন্যা কবলিত । এতে প্রায় ২৫ হাজার মানুষ পানি বন্দি হয়ে পড়েছে । জেলা প্রশাসন থেকে এ পর্যন্ত ৩৫ মেট্রিক টন চাল এবং ৫০ হাজার টাকা ত্রান হিসেবে দেয়া হয়েছে যা প্রয়োজনের তুলনায় খুবই কম । তিনি বলেন বন্যা এলাকায় বিশুদ্ধ পানি সহ বিভিন্ন সমস্যায় রয়েছে সাধারন মানুষ । তিনি পর্যাপ্ত ত্রান দেয়ার দাবী জানান । চৌহালী উপজেলার ওমরপুর ইউনিয়নের শৈলজানা গ্রামের আব্দুল হাকিম জানান,গত প্রায় ৮দিন হয় বন্যা হলেও গত মঙ্গলবার ২০ কেজী চাল দেয়া হয়েছে । তিনি আরো বলে বন্যার পানি কবে নামবে তার ঠিক নেই । কাজ করতে পারছিনা । যেভাবে সাহায্য দেয়া হচ্ছে তাতে করে দুদিন সংসার চালানোই কঠিন । তিনি পর্যাপ্ত ত্রান দেয়ার দাবী জানান । এবিষয়ে সিরাজগঞ্জহ জেরা প্রশাসক মোঃ বিল্লাল হোসেন বলেন, ত্রান অপ্রতুল নেই । আমরা ইতোদধ্যে জেলা বন্যা কবলিত এলাকায় ২৫০ মেট্রিক টন চাল এবং নগদ ৩লাখ ৫০ হাজার টাকা বিতরন করেছি । এছাড়া আমাদের প্রয়োজনীয় ত্রান সামগ্রী মজুদ রয়েছে । তবে তিনি বলেন জেলার কাজিপুর এবং চৌহালীর দুর্গম এলাকায় ত্রান পৌঁছাতে কিছুটা সমস্যা হচ্ছে । আমাদের পর্যপ্ত ত্রান সামগ্রী রয়েছে এবং বন্যায় ক্ষতি গ্রস্ত মানুষ প্রয়োজনীয় ত্রান এবং সহায়তা পাবে বলে তিনি জানান । সিরাজগঞ্জ কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তরের উপপরিচালক মোঃ সফিউল আলম জানান গত কয়েক দিনের বন্যায় এপর্যন্ত ৩ হাজার ৮০১ হেক্টর জমির ফসল পানিতে তলিয়ে গেছে এর মধ্যে প্রায় ৩ বিঘা জমি মরিচের ক্ষেত রয়েছে । এবং এর মধ্যে বেশীর ভাগ জমি শীত কালিন সবজী রয়েছে বলে জানিয়েছে তিনি । সদর উপজেলার বেজগাতী গ্রামের মোঃ আব্দুল বারী বলেন তিনি ২৫ শতক জমিতে সবজি চাষ করেছিলেন বন্যায় ডুবে গেছে এবং এতে তার প্রায় ১৫ হাজার টাকা ক্ষতি হবে বলে তিনি জানিয়েছেন ।

সিরাজগঞ্জের উল্ল¬াপাড়া এবং শাহজাদপুরে ২৯জন এ্যানথ্রাক্সে আক্রান্ত

Shamol Bangla Ads

সিরাজগঞ্জের উল্ল¬াপাড়া এবং শাহজাদপুরে ২৯জন এ্যানথ্রাক্সে আক্রান্ত হয়েছে।
বিষয়টি সিরাজগঞ্জ সিভিল সার্জন অফিসের মাধ্যমে তদারকি করা হচ্ছে বলে দাবী করেছে সংশ্লিষ্ট বিভাগ । সুত্রজানায় উল্লাপাড়া উপজেলার চরÑনন্দীগাঁতী গ্রামে অসুস্থ গরুর গোস্ত খেয়ে শিশু ও মহিলা সহ ২০ নারী পুরুষ এ্যানথ্রাক্সে আক্রান্ত হয়েছে। এদের কে মঙ্গলবার উল¬াপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপে¬ক্সে চিকিৎসা দেয়া হয়। এ্যানথ্রাক্সে আক্রান্ত রোগীরা হলেন উল্লাপাড়া উপজেলার চর নন্দীগাঁতী গ্রামের গোলাম মোস্তফা (২০), আব্দুর রহমান (৪২), সাইফুল ইসলাম (২৫), হারুন (৮), সোহেল (১৪), দুলাল হোসেন (৪০), সারোয়ার হোসেন (১৪),আল আমিন (৯), আনছার আলী (৪২), বারেক হোসেন (১৪), জাহাঙ্গীর হোসেন (১৪), খুশি খাতুন (৪০), চয়ন (১৪), রেহানা (২২), আইয়ুব (৪২), সাথী (১৩), রুবিনা (৫০), রবিউল (৫৫), মালেক (৬০), ও অন্তরা (৫)। এ্যানথাক্্র রোগে আক্রান্তরা হলো, চর নন্দীগাঁতী গ্রামের গোলাম মোস্তফা (২০), আব্দুর রহমান (৪২), সাইফুল ইসলাম (২৫),হারুন (৮),সোহেল (১৪),দুলাল হোসেন ( ৪০), সারোয়ার হোসেন ( ১৪), আল আমিন ( ৯), আনছার আলী ( ৪২), বাকের হোসেন ( ১৪), জাহাঙ্গীর হোসেন (১৪), খুশি খাতুন (৪০), চয়ন (১৪), রেহানা( ২২),আয়ুব (৪২), সাথী (১৩),রুবিনা (৫০),রবিউল (৫৫) মালেক (৬০) ও অন্তরা (৫)।
এছাড়াও শাহজাদপুর উপজেলার কৈজুরি গ্রামের পাখি(১০), শাকিল (১৫), ঘাবিব (১৭), শামসুল (৩৫)) মানিক (৩০) ও রূপবাটি গ্রামের রুহুল আমিন (১৮) মোঃ মজিবর রহমান (২৮) মোঃ শাহ আলম এবং আয়মালা খাতুন। এদের শরীরের বিভিন্ন স্থানে এ্যানথ্রাক্স আক্রান্ত হয়েছে। এর পর থেকে এই এলাকার সাধারন মানুষের মাঝে আতঙ্ক দেখা দিয়েছে। উল¬াপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও প.প. কর্মকর্তা ডাঃ সুকুমার সুর রায় জানান, গত ১৬ আগষ্ট এই গ্রামের বেলাল হোসেনের ছেলে আব্দুর রহমানের একটি ষাড় গরু অসুস্থ হয়ে পড়ে। এই গরুটি পাড়ার লোকজন মিলে কিনে নিয়ে জবাই করে মাংস ভাগ করে নেয়। ডাঃ সুকুমার সুর রায় আরো জানায়, গরুটি এ্যানথ্রাক্স রোগে আক্রান্ত ছিল বলে ধারনা করা হচ্ছে। এ গরুর মাংস খেয়ে গ্রামের লোকজন এ্যানথ্রাক্স রোগে আক্রান্ত হয়েছে। মঙ্গলবার সিরাজগঞ্জ সিভিল সার্জন অফিসের অফিসের ইপিআই সুপারভাইজার আব্দুস সোবাহানের নেতৃত্বে একটি চিকিৎসক দল চরÑনন্দীগাঁতী গ্রামে গিয়ে আক্রান্ত লোকজনকে চিকিৎসা দেন। এ বিষয়ে সিরাজগঞ্জের সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ শামসুদ্দীন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, বিষয়টি জানার পর স্বাস্থ্য বিভাগের মেডিকেল টিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন এবং আক্রান্ত ব্যক্তিদের চিকিৎসা দিয়েছেন। তিনি বলেন, এখন আতঙ্কিত হওয়ার মত কিছু নাই। ইতিমধ্যে ঢাকা থেকে ১১ সদস্য বিশিষ্ট একটি টিম সিরাজগঞ্জে এসে পৌছেছেন, তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করবেন।

সিরাজগঞ্জ এক্সপ্রেস ট্টেনের ইঞ্জিন লাইনচ্যুত হওয়ায় সোয়া ১ ঘন্টা পর ঢাকার সাথে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক

সিরাজগঞ্জের রায়পুরে সিরাজগঞ্জ এক্সপ্রেস ট্রেনের ইঞ্জিন লাইনচ্যুত হওয়ায় সোয়া ১ ঘন্টা পর ঢাকার সাথে সিরাজগঞ্জ এক্স্রপপ্রেস ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক হয়েছে। সকাল পৌনে ১০টার দিকে সিরাজগঞ্জ শহরের রায়পুর রেলওয়ে ষ্টেশনের ১শ মিটার ডাউনে ট্রেনের ইঞ্জিন ঘুরানোর সিরাজগঞ্জ এক্সপ্রেস ট্রেনের ইঞ্জিনটি লাইনচ্যুত হয়। এ কারনে ঢাকামুখি সিরাজগঞ্জ এক্সপ্রেস ট্রেনটি থাকা যাত্রীরা দূর্ভোগে পড়ে। পরে প্রায় সোয়া ১ ঘন্টা পর রায়পুর স্টেশনে থাকা মালবাহী আই ইউ এস বি থারটি সেভেন ট্টেনের ইঞ্জিন দিয়ে সিরাজগঞ্জ এক্সপ্রেস ট্টেনটি বেলা ১২টার সময় রায়পুর থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়। মালবাহী আই ইউ এস বি থারটি সেভেন ট্টেনের এসিসটেন লোক মোটিভ মাস্টার মোঃ ইমরান হোসেন জানান, দূর্বল লাইনের কারণে মূলত ইঞ্জিনটি লাইনচ্যূত হয়েছে। এর আগেও একই কারণে একই জায়গায় একাধিক বার বগি অথবা ইঞ্জিন লাইনচ্যুতর ঘটনা ঘটেছে। সিরাজগঞ্জ বাজার স্টেশন ইন-চার্জ ইব্রাহিম হোসেন জানান, বিষয়টি উর্দ্ধত্তন কর্মকর্তাদের জানানো হয়েছে।

সর্বশেষ - ব্রেকিং নিউজ

error: কপি হবে না!