ads

সোমবার , ১৯ আগস্ট ২০১৩ | ৯ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের নিবন্ধনপ্রাপ্ত অনলাইন নিউজ পোর্টাল
  1. ENGLISH
  2. অনিয়ম-দুর্নীতি
  3. আইন-আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. আমাদের ব্লগ
  6. ইতিহাস ও ঐতিহ্য
  7. ইসলাম
  8. উন্নয়ন-অগ্রগতি
  9. এক্সক্লুসিভ
  10. কৃষি ও কৃষক
  11. ক্রাইম
  12. খেলাধুলা
  13. খেলার খবর
  14. চাকরির খবর
  15. জাতীয় সংবাদ

সরকারের প্রতি খালেদা জিয়া : এত আস্ফালন ভালো নয়

শ্যামলবাংলা ডেস্ক
আগস্ট ১৯, ২০১৩ ১১:২৭ অপরাহ্ণ

Khaleda+Ziaশ্যামলবাংলা ডেস্ক : বিরোধীদলীয় নেতা ও বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া  ‘আস্ফালন’ না করে নির্দলীয় সরকারের বিল সংসদে তুলে তা পাস করতে ক্ষমতাসীনদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন ।
‘আগামী নির্বাচনের ক্ষেত্রে সংবিধান থেকে একচুলও নড়া হবে না’ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওই ঘোষণার জবাবে বলেন, দেশের ৯০ ভাগ মানুষ নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন চায়। এখনো সময় আছে, নির্দলীয় সরকারের বিল পার্লামেন্টে এনে তা পাস করুন, দেশে অবাধ নির্বাচনের ব্যবস্থা করুন। এসময় তিনি আগামীতে ক্ষমতায় গেলে আওয়ামী লীগকে সঙ্গে নিয়ে কাজ করবেন বলেও জানান।
তিনি ১৯ আগস্ট সোমবার সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে স্বেচ্ছাসেবক দলের ৩৩তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষ্যে আয়োজিত এক সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ওই আহ্বান জানান। ৩ দশকের রাজনৈতিক জীবনে এই প্রথম সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে কোনো সমাবেশে অংশ নিলেন তিনি।
ওই সমাবেশে তিনি ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সমালোচনার পাশাপাশি আগামীতে ক্ষমতায় গেলে কী কী করবেন, তার ফিরিস্তি তুলে ধরে বলেন, আমরা ক্ষমতায় গেলে নতুন ধারার রাজনীতি চালু করব। বিভক্তি ও অনৈক্যের পরিবর্তে ঐক্যের রাজনীতি করব। আওয়ামী লীগসহ সবাইকে নিয়ে রাজনীতি করব।
Khaleda Ziaসমাবেশে বিএনপি নেতা সাদেক হোসেন খোকা বলেন, আপনি (প্রধানমন্ত্রী) বলেছেন, একচুলও নড়বেন না। আমরা বলতে চাই, আপনাকে একচুল নয়, বহুচুল পর্যন্ত নড়তে হবে। নইলে আপনার মাথায় কোনো চুল থাকবে না।
স্বেচ্ছাসেবক দলের হাজার হাজার নেতা-কর্মী এই আলোচনা সভায় যোগ দেন। সভার দ্বিতীয় পর্বে বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের ওপর একটি তথ্যচিত্র দেখানো হয়। এরপর হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।
স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি হাবিবউন নবী খান সোহেলের সভাপতিত্বে ওই সমাবেশে বিএনপি নেতাদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য, খন্দকার মোশাররফ হোসেন, তরিকুল ইসলাম, ও মির্জা আব্বাস, ফজলুল হক মিলন, কাজী আসাদুজ্জামান প্রমুখ।

error: কপি হবে না!