[bangla_time] | [bangla_day] | [english_date] | [bangla_date]

‘স্ট্রেঞ্জার থিংস’–এ এবার বন্ধুত্বের পরীক্ষা

শ্যামলবাংলা ডেস্ক : ‘ইলাভেন’ কারও নাম হতে পারে? স্ট্রেঞ্জার থিংস-এ সবই সম্ভব। স্ট্রেঞ্জার থিংস মানে অদ্ভুত ব্যাপার-স্যাপার। নেটিফ্লিক্সের এই টিভি সিরিজ এর নামের মতোই অদ্ভুতুড়ে ঘটনা নিয়ে সাজানো। সায়েন্স ফিকশন হরর সিরিজ স্ট্রেঞ্জার থিংস–এর নির্মাতা ডাফার ভ্রাতৃদ্বয়— ম্যাট ও রজ ডাফার। আজ ৪ জুলাই মুক্তি পাচ্ছে সিরিজের তৃতীয় মৌসুম। কী কী ‘স্ট্রেঞ্জ’ অর্থাৎ অদ্ভুত জিনিসপত্র ঘটে গেছে আর সামনে যা ঘটতে পারে, সেসব নিয়েই আজকের ওই লেখা বন্ধুত্ব।

আশির দশকের কথা। যুক্তরাষ্ট্রের অঙ্গরাজ্য ইন্ডিয়ানার শহর হকিন্সের চার কিশোর বন্ধু মাইক, উইল, ডাস্টিন আর লুকাসের দিনকাল ভালোই চলছিল। বিপত্তিটা হলো, এক রাতে মাইকের বাসা থেকে খেলা শেষে বাড়ি ফেরার পথে উধাও হয়ে গেল উইল। আর সেই রহস্য উদ্ধারেই নেমে পড়ল বাকি তিন বন্ধু। নিজেরাই সাধ্যমতো খুঁজতে থাকল বন্ধুকে। এমন সময় পরিচয় হলো ‘ইলাভেন’ বা ‘এল’ নামের এক রহস্যকন্যার সঙ্গে, যে কিনা চোখের ইশারাতেই যেকোনো জিনিস হাওয়ায় ভাসাতে পারে, নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। একদিকে নিজেদের বন্ধু হারিয়ে যাওয়া আর অন্যদিকে এমন এক রহস্যকন্যাকে মাইকের বাড়িতে লুকিয়ে রাখা—এসব চমক দিয়েই শুরু হয় স্ট্রেঞ্জার থিংস। আর একের পর এক চমক বাড়তেই থাকে।

হকিন্সের পুলিশ কর্মকর্তা হপার। নিখোঁজ উইলকে খোঁজার মামলা হাতে নিয়ে একসময় বুঝতে পারলেন যে তিনি আসলে উইলের পেছনে না, অন্য কোনো হারানো শিশুর পেছনে ঘুরছেন। সেই শিশুর নাম ইলাভেন। মাইকদের বেসমেন্টে লুকিয়ে থাকা সেই মেয়েটি। অন্যদিকে উইলের মা জয়েসও বিশ্বাস করেন যে তাঁর ছেলে বেঁচে আছে। কেউ প্রথমে বিশ্বাস না করলেও হপার শেষমেশ ঠিকই বুঝতে পারেন যে জয়েস গোড়া থেকেই ঠিক। এর মাঝে আবার মাইকের বোন ন্যান্সির বান্ধবী বারবারা নিখোঁজ হয়ে যায়। উইল বা বারবারার হারানোর রহস্য বের করতে করতেই এগোতে থাকে মূল কাহিনি।

নেটফ্লিক্সে স্ট্রেঞ্জার থিংস–এর প্রথম মৌসুম আটটি পর্ব নিয়ে মুক্তি পায় ২০১৬ সালের ১৫ জুলাই। দ্বিতীয় মৌসুম মুক্তি পায় ২০১৭ সালের অক্টোবর, সেটা ছিল ৯ পর্বের।

তৃতীয় মৌসুম:
১৯৮৫ সালের হকিন্স। গ্রীষ্ম এসে গেছে, স্কুলও বন্ধ। শহরে নতুন একটি শপিং মল হয়েছে। মাইক, উইলরাও এখন আর ছোট নেই। দ্বিতীয় মৌসুমের পর যাঁরা স্বস্তির নিশ্বাস ফেলেছিলেন, তাঁদের জন্য দুঃসংবাদ এসেছে এবারের ট্রেলার থেকেই। অন্য যে মহাজগতের দরজা খুদে পাণ্ডবের দল বন্ধ করে দিয়েছিল, সে জগতের অদ্ভুত ছায়াপ্রাণীই আবার পৃথিবীতে আসতে চায়। পোষকদেহের সন্ধানে আছে সে। শত্রু কখনো শেষ হয়ে যায় না, তাদের কেবল পুনর্জন্ম বা ব্যাপ্তি ঘটে, সেটাই বোঝানো হয়েছে এবারের স্ট্রেঞ্জার থিংস–এর ট্রেলারে।

শেরিফ হপার চরিত্রের অভিনেতা ডেভিড হারবার জানিয়েছেন, তৃতীয় মৌসুমের শেষ পর্ব এখন পর্যন্ত তাঁর অভিনীত সেরা পর্ব। এটি নাকি ভক্তদের আবেগী করে তুলবে! এই মৌসুমে বন্ধুত্বের বেশ বড় পরীক্ষা দিতে হবে মাইক–উইল–ডাস্টিন–ইলাভেনদের। ঘটনাগুলো যে আগের মতো ‘স্ট্রেঞ্জ’, কিংবা তার চেয়েও অদ্ভুত হতে বাকি নেই, নিঃসন্দেহে তা বলার অপেক্ষা রাখছে না।

অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ খবর



» ময়মনসিংহে পেঁয়াজের বাজারে পুলিশ সুপারের অভিযান, দাম কমলো ৫০ টাকা

» মোহাম্মদ রবিউল আলম (টুকু)’র পদ্য ‘হায় রে পিঁয়াজ!’

» মইনুল হোসেন প্লাবন’র পদ্য ‘অনন্য পৃথিবী’

» ওষুধের মতো কাজ করে যেসব শাক-সবজি

» সুরের পাখি ‘রুনা লায়লা’র ৬৭তম জন্মদিন আজ

» চট্টগ্রামে গ্যাস লাইন বিস্ফোরণে নিহত ৭

» বিপিএলের নিলাম আজ সন্ধ্যায় : প্লেয়ার্স ড্রাফটে ২১ দেশের ৪৩৯ ক্রিকেটার

» বিপিএলের নিলামে জার্মানির ক্রিকেটার!

» সরকারি চাকরিতে মুক্তিযোদ্ধাদের অবসরের বয়স ৬০

» নতুন সড়ক পরিবহন আইন আজ থেকে কার্যকর : কাদের

» শ্রীলংকার নয়া প্রেসিডেন্ট রাজাপাকসে

» শেরপুরে সাবেক ফারমার্স ব্যাংকের কর্মকর্তাদের দুর্নীতির প্রতিবাদে ঋণগ্রহীতাদের সংবাদ সম্মেলন

» মিসর থেকে কার্গো বিমানে পেঁয়াজের প্রথম চালান আসছে মঙ্গলবার

» প্রাথমিক ও ইবতেদায়ি সমাপনী পরীক্ষা শুরু

» ঢাকাস্থ ‘শেরপুর জেলা সমিতি’র নয়া সভাপতি নজরুল, মহাসচিব রাজ্জাক

সম্পাদক-প্রকাশক : রফিকুল ইসলাম আধার
উপদেষ্টা সম্পাদক : সোলায়মান খাঁন মজনু
নির্বাহী সম্পাদক : মোহাম্মদ জুবায়ের রহমান
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-১ : ফারহানা পারভীন মুন্নী
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-২ : আলমগীর কিবরিয়া কামরুল
বার্তা সম্পাদক-১ : রেজাউল করিম বকুল
বার্তা সম্পাদক-২ : মোঃ ফরিদুজ্জামান।
যোগাযোগ : সম্পাদক : ০১৭২০০৭৯৪০৯
নির্বাহী সম্পাদক : ০১৯১২০৪৯৯৪৬
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-১: ০১৭১৬৪৬২২৫৫
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-২ : ০১৭১৪২৬১৩৫০
বার্তা সম্পাদক-১ : ০১৭১৩৫৬৪২২৫
বার্তা সম্পাদক -২ : ০১৯২১-৯৫৫৯০৬
বিজ্ঞাপন : ০১৭১২৮৫৩৩০৩
ইমেইল : shamolbangla2013@gmail.com.

কারিগরি সহযোগিতায় BD iT Zone

,

‘স্ট্রেঞ্জার থিংস’–এ এবার বন্ধুত্বের পরীক্ষা

শ্যামলবাংলা ডেস্ক : ‘ইলাভেন’ কারও নাম হতে পারে? স্ট্রেঞ্জার থিংস-এ সবই সম্ভব। স্ট্রেঞ্জার থিংস মানে অদ্ভুত ব্যাপার-স্যাপার। নেটিফ্লিক্সের এই টিভি সিরিজ এর নামের মতোই অদ্ভুতুড়ে ঘটনা নিয়ে সাজানো। সায়েন্স ফিকশন হরর সিরিজ স্ট্রেঞ্জার থিংস–এর নির্মাতা ডাফার ভ্রাতৃদ্বয়— ম্যাট ও রজ ডাফার। আজ ৪ জুলাই মুক্তি পাচ্ছে সিরিজের তৃতীয় মৌসুম। কী কী ‘স্ট্রেঞ্জ’ অর্থাৎ অদ্ভুত জিনিসপত্র ঘটে গেছে আর সামনে যা ঘটতে পারে, সেসব নিয়েই আজকের ওই লেখা বন্ধুত্ব।

আশির দশকের কথা। যুক্তরাষ্ট্রের অঙ্গরাজ্য ইন্ডিয়ানার শহর হকিন্সের চার কিশোর বন্ধু মাইক, উইল, ডাস্টিন আর লুকাসের দিনকাল ভালোই চলছিল। বিপত্তিটা হলো, এক রাতে মাইকের বাসা থেকে খেলা শেষে বাড়ি ফেরার পথে উধাও হয়ে গেল উইল। আর সেই রহস্য উদ্ধারেই নেমে পড়ল বাকি তিন বন্ধু। নিজেরাই সাধ্যমতো খুঁজতে থাকল বন্ধুকে। এমন সময় পরিচয় হলো ‘ইলাভেন’ বা ‘এল’ নামের এক রহস্যকন্যার সঙ্গে, যে কিনা চোখের ইশারাতেই যেকোনো জিনিস হাওয়ায় ভাসাতে পারে, নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। একদিকে নিজেদের বন্ধু হারিয়ে যাওয়া আর অন্যদিকে এমন এক রহস্যকন্যাকে মাইকের বাড়িতে লুকিয়ে রাখা—এসব চমক দিয়েই শুরু হয় স্ট্রেঞ্জার থিংস। আর একের পর এক চমক বাড়তেই থাকে।

হকিন্সের পুলিশ কর্মকর্তা হপার। নিখোঁজ উইলকে খোঁজার মামলা হাতে নিয়ে একসময় বুঝতে পারলেন যে তিনি আসলে উইলের পেছনে না, অন্য কোনো হারানো শিশুর পেছনে ঘুরছেন। সেই শিশুর নাম ইলাভেন। মাইকদের বেসমেন্টে লুকিয়ে থাকা সেই মেয়েটি। অন্যদিকে উইলের মা জয়েসও বিশ্বাস করেন যে তাঁর ছেলে বেঁচে আছে। কেউ প্রথমে বিশ্বাস না করলেও হপার শেষমেশ ঠিকই বুঝতে পারেন যে জয়েস গোড়া থেকেই ঠিক। এর মাঝে আবার মাইকের বোন ন্যান্সির বান্ধবী বারবারা নিখোঁজ হয়ে যায়। উইল বা বারবারার হারানোর রহস্য বের করতে করতেই এগোতে থাকে মূল কাহিনি।

নেটফ্লিক্সে স্ট্রেঞ্জার থিংস–এর প্রথম মৌসুম আটটি পর্ব নিয়ে মুক্তি পায় ২০১৬ সালের ১৫ জুলাই। দ্বিতীয় মৌসুম মুক্তি পায় ২০১৭ সালের অক্টোবর, সেটা ছিল ৯ পর্বের।

তৃতীয় মৌসুম:
১৯৮৫ সালের হকিন্স। গ্রীষ্ম এসে গেছে, স্কুলও বন্ধ। শহরে নতুন একটি শপিং মল হয়েছে। মাইক, উইলরাও এখন আর ছোট নেই। দ্বিতীয় মৌসুমের পর যাঁরা স্বস্তির নিশ্বাস ফেলেছিলেন, তাঁদের জন্য দুঃসংবাদ এসেছে এবারের ট্রেলার থেকেই। অন্য যে মহাজগতের দরজা খুদে পাণ্ডবের দল বন্ধ করে দিয়েছিল, সে জগতের অদ্ভুত ছায়াপ্রাণীই আবার পৃথিবীতে আসতে চায়। পোষকদেহের সন্ধানে আছে সে। শত্রু কখনো শেষ হয়ে যায় না, তাদের কেবল পুনর্জন্ম বা ব্যাপ্তি ঘটে, সেটাই বোঝানো হয়েছে এবারের স্ট্রেঞ্জার থিংস–এর ট্রেলারে।

শেরিফ হপার চরিত্রের অভিনেতা ডেভিড হারবার জানিয়েছেন, তৃতীয় মৌসুমের শেষ পর্ব এখন পর্যন্ত তাঁর অভিনীত সেরা পর্ব। এটি নাকি ভক্তদের আবেগী করে তুলবে! এই মৌসুমে বন্ধুত্বের বেশ বড় পরীক্ষা দিতে হবে মাইক–উইল–ডাস্টিন–ইলাভেনদের। ঘটনাগুলো যে আগের মতো ‘স্ট্রেঞ্জ’, কিংবা তার চেয়েও অদ্ভুত হতে বাকি নেই, নিঃসন্দেহে তা বলার অপেক্ষা রাখছে না।

সর্বশেষ খবর



অন্যান্য খবর



সম্পাদক-প্রকাশক : রফিকুল ইসলাম আধার
উপদেষ্টা সম্পাদক : সোলায়মান খাঁন মজনু
নির্বাহী সম্পাদক : মোহাম্মদ জুবায়ের রহমান
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-১ : ফারহানা পারভীন মুন্নী
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-২ : আলমগীর কিবরিয়া কামরুল
বার্তা সম্পাদক-১ : রেজাউল করিম বকুল
বার্তা সম্পাদক-২ : মোঃ ফরিদুজ্জামান।
যোগাযোগ : সম্পাদক : ০১৭২০০৭৯৪০৯
নির্বাহী সম্পাদক : ০১৯১২০৪৯৯৪৬
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-১: ০১৭১৬৪৬২২৫৫
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-২ : ০১৭১৪২৬১৩৫০
বার্তা সম্পাদক-১ : ০১৭১৩৫৬৪২২৫
বার্তা সম্পাদক -২ : ০১৯২১-৯৫৫৯০৬
বিজ্ঞাপন : ০১৭১২৮৫৩৩০৩
ইমেইল : shamolbangla2013@gmail.com.

কারিগরি সহযোগিতায় BD iT Zone

error: Content is protected !!