প্রকাশকাল: 19 আগস্ট, 2019

শ্যামল বণিক অঞ্জন’র পদ্য ‘বঙ্গবন্ধু তুমি নমস্য’

শুনেছিলাম কন্ঠে তোমার-
শিকল ভাঙার গান,
কোটি জনতার মঞ্চে দাঁড়িয়ে
শিহরণ জাগানীয়া এক মহাকাব্য।
বিবর্ণ ফাগুন হয়েছিলো রঙিন টকটকে লাল সিঁদুরের আভায়
ঘুম ভাঙানিয়া মন্ত্র ধ্বণীতে।
অদৃশ্য ডানায় মুক্ত নীলাম্বরে প্রাণ চঞ্চল পাখিদের মতো-
উড়ে চলবার প্রেরণাদায়ী বাণী
কতোইনা অবলীলায় উচ্চারিত হতে শুনেছিলাম
তোমার ঐ উজ্জল মুখখানীতে-
বিশুদ্ধ বাতাসে প্রাণ ভরে নি:শ্বাস নেবার নি:শ্বাস নেবার পন্থা
শিখিয়েছিলে তুমি অকুতভয় চিত্তে
নিরন্য মানুষের অগ্রভাগে থেকে।
পিতা-
তুমিইতো ছড়িয়েছিলে দ্যুতি তমসার পর্দা ছিঁড়ে,
মুক্তিকামী প্রাণে তোমার যাদুকরী হাতের হাতের বীণায় তুলেছিলে স্বাধীনতার মধুময় রাগিনী।
পিতা-
তুমিইতো অবসান ঘটিয়েছিলে অনিশ্চয়তার অধ্যায়ের-
তোমার অন্তহীন মেধা মনন, প্রজ্ঞা, অবিচল ব্যক্তিত্ববোধ, বিচক্ষণ নেতৃত্বগুন, চুলচেঁড়া বিশ্লেষণ আর নিখাঁদ দর্শনে।
তুমি মহাণ-
হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ সূর্য্য সন্তান এক দু:খিনী মায়ের।
পিতা-
সত্যিই তুমি ক্ষনজন্মা, উজ্জল আলোময় এক নক্ষত্র বাংলার আকাশের,
পিতা- তুমি নমস্য।

আপনার মতামত দিন

XHTML: You can use these html tags: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <s> <strike> <strong>

error: Content is protected !!