সকাল ৯:৪১ | মঙ্গলবার | ২৬শে মে, ২০২০ ইং | ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধি পুনর্বিবেচনা করতে ময়মনসিংহ জেলা নাগরিক আন্দোলনের আহবান

স্টাফ রিপোর্টার, ময়মনসিংহ ॥ ময়মনসিংহ জেলা নাগরিক আন্দোলন উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদ সভাপতি ও মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক অ্যাডভোকেট আনিসুর রহমান খান ও সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা ইঞ্জিনিয়ার নুরুল আমিন কালাম এক বিবৃতিতে জানান, বাংলাদেশে মোট উৎপাদিত বিদ্যুতের ৫৮ শতাংশই ব্যবহৃত হচ্ছে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতিতে। অথচ পল্লী এলাকায় বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধির কারণে মরার ওপর খাঁড়ার ঘা-তে পরিণত হয়েছে। এমনিতেই বর্তমানে পেয়াঁজ, চাল, তরিতরকারিসহ নিত্য পণ্যের দাম বৃদ্ধি রোধ করা যাচ্ছে না। হঠাৎ বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধির কারণে নিম্নবিত্তের লোকজনের কষ্ট আরো বেড়ে যাবে। পরিবহন ভাড়া, বাসা ভাড়া থেকে অনেক কিছুর দাম বাড়ার আশংকা রয়েছে । এতে সাধারণ মানুষের অনেক কষ্ট হবে। সরকারের কাছে অনুরোধ করব, এই মূল্যবৃদ্ধির আদেশ পুনর্বিবেচনা করার জন্য। নাগরিক আন্দোলন উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদ চায় সাধারণ মানুষ যেন কষ্টে না থাকে।

img-add

বিবৃতিতে ময়মনসিংহ জেলা নাগরিক আন্দোলন উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদ সভাপতি অ্যাডভোকেট আনিসুর রহমান খান ও সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুল আমিন কালাম আরো জানান, বর্তমান সরকারের দুর্বল মনিটরিং এর কারণে এবং সঠিক পরিসংখ্যানের অভাবে দেশে দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধি পাচ্ছে। পেয়াজ-রসুন, চাল, ডাল, গম, আদাসহ অন্যান্য নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য প্রতিবছর বিদেশ থেকে প্রচুর পরিমাণে আমদানি করে বিদেশে প্রচুর দেশী মুদ্রা চলে যাচ্ছে। তাই দেশে এসব পণ্য উৎপাদনের প্রয়োজনীয় কার্যকর পদক্ষেপের জন্য প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে জাতীয় মনিটরিং কমিটি ও টাস্কফোর্স গঠন করার আহবান জানিয়েছেন জেলা নাগরিক আন্দোলন উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদ।
ময়মনসিংহ জেলা নাগরিক আন্দোলন উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদের প্রচার সম্পাদক মোঃ নজরুল ইসলাম স্বাক্ষরিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে আরো জানানো হয়, আবার বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন বা বিইআরসি। অবশ্য এবার বাড়ছে শুধু দেশটির পল্লী বিদ্যুৎ সমিতিগুলোর গ্রাহকদের জন্য। আগামী মার্চ থেকে বাংলাদেশের গ্রামীণ এলাকার ব্যবহারকারীদের প্রতি ইউনিট বিদ্যুতের জন্য অতিরিক্ত ৩৬ পয়সা করে গুনতে হবে। বিইআরসি’র তথ্যমতে, এর ফলে পল্লী বিদ্যুৎ ইউনিট প্রতি বিদ্যুতের দাম দাঁড়াচ্ছে তিন টাকা ৭৫ পয়সা।
এতদিন পল্লী বিদ্যুৎ ব্যবহারকারীদের যাদের বিল ২১৫ টাকা থেকে ২১৯ টাকার মধ্যে হতো, এখন তাদের বিল হবে ২২০ থেকে ২২৫ টাকা।
অন্যদিকে যাদের বিল ৭৫৯ টাকা হতো সেটা বেড়ে হবে ৮০৩ টাকা। আর এতদিন ধরে যারা ১৯৫২ টাকা পর্যন্ত বিল পরিশোধ করতেন এখন তাদের ২০৬৬ টাকা পরিশোধ করতে হবে। মার্চ মাসের এক তারিখ থেকে নতুন এই দাম কার্যকর হবে। বিইআরসির চেয়ারম্যান দাবি করছেন যে, তারা বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধি করার ক্ষেত্রে মধ্যবিত্ত শ্রেণীকে গুরুত্ব দিয়েছেন। তিনি আরও জানিয়েছেন, বাংলাদেশে মোট উৎপাদিত বিদ্যুতের ৫৮ শতাংশই ব্যবহৃত হয় পল্লী বিদ্যুৎ সমিতিতে।

অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ খবর



» সম্প্রীতির শিক্ষা ছড়িয়ে পড়ুক, গড়ে উঠুক সমৃদ্ধ দেশ : রাষ্ট্রপতি

» শারীরিক দূরত্ব বজায় রেখে ঈদ পালন করুন : কাদের

» তিনটি জীবন্ত ‘করোনা ভাইরাস’ ছিল উহানের ল্যাবে!

» ঘরে বসেই ঈদের আনন্দ উপভোগ করার অনুরোধ প্রধানমন্ত্রীর

» শাওয়াল মাসের চাঁদ দেখা গেছে, কাল ঈদ

» সাধারণ ছুটি বাড়বে কিনা সিদ্ধান্ত বৃহস্পতিবার: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

» শেরপুরে বিভিন্ন শ্রমিক সংগঠনের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করলেন হুইপ আতিক

» শেরপুরের ৭ গ্রামে আগাম ঈদুল ফিতর পালিত

» সাবেক এমপি শ্যামলী ॥ মানবতার এক অনন্য ফেরীওয়ালা

» শেরপুরে পত্রিকার হকারদের মাঝে পুলিশের ঈদ উপহার

» শেরপুরে আরও দুইজনের করোনা শনাক্ত ॥ জেলায় মোট আক্রান্ত ৭৭

» ঈদে শবনম ফারিয়ার চমক

» করোনায় একদিনে রেকর্ড ২৮ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ১৫৩২

» শেরপুরে ৩ হাজার দরিদ্র ও অসহায় পরিবারের মাঝে ঈদ উপহার পৌঁছে দিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান

» শেরপুরের সূর্যদীর সেই শহীদ পরিবার ও যুদ্ধাহত পরিবারগুলোর পাশে জেলা প্রশাসক আনার কলি মাহবুব

সম্পাদক-প্রকাশক : রফিকুল ইসলাম আধার
উপদেষ্টা সম্পাদক : সোলায়মান খাঁন মজনু
নির্বাহী সম্পাদক : মোহাম্মদ জুবায়ের রহমান
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-১ : ফারহানা পারভীন মুন্নী
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-২ : আলমগীর কিবরিয়া কামরুল
বার্তা সম্পাদক-১ : রেজাউল করিম বকুল
বার্তা সম্পাদক-২ : মোঃ ফরিদুজ্জামান।
যোগাযোগ : সম্পাদক : ০১৭২০০৭৯৪০৯
নির্বাহী সম্পাদক : ০১৯১২০৪৯৯৪৬
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-১: ০১৭১৬৪৬২২৫৫
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-২ : ০১৭১৪২৬১৩৫০
বার্তা সম্পাদক-১ : ০১৭১৩৫৬৪২২৫
বার্তা সম্পাদক -২ : ০১৯২১-৯৫৫৯০৬
বিজ্ঞাপন : ০১৭১২৮৫৩৩০৩
ইমেইল : shamolbangla2013@gmail.com.

© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । ওয়েবসাইট তৈরি করেছে- BD iT Zone

  সকাল ৯:৪১ | মঙ্গলবার | ২৬শে মে, ২০২০ ইং | ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধি পুনর্বিবেচনা করতে ময়মনসিংহ জেলা নাগরিক আন্দোলনের আহবান

স্টাফ রিপোর্টার, ময়মনসিংহ ॥ ময়মনসিংহ জেলা নাগরিক আন্দোলন উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদ সভাপতি ও মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক অ্যাডভোকেট আনিসুর রহমান খান ও সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা ইঞ্জিনিয়ার নুরুল আমিন কালাম এক বিবৃতিতে জানান, বাংলাদেশে মোট উৎপাদিত বিদ্যুতের ৫৮ শতাংশই ব্যবহৃত হচ্ছে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতিতে। অথচ পল্লী এলাকায় বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধির কারণে মরার ওপর খাঁড়ার ঘা-তে পরিণত হয়েছে। এমনিতেই বর্তমানে পেয়াঁজ, চাল, তরিতরকারিসহ নিত্য পণ্যের দাম বৃদ্ধি রোধ করা যাচ্ছে না। হঠাৎ বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধির কারণে নিম্নবিত্তের লোকজনের কষ্ট আরো বেড়ে যাবে। পরিবহন ভাড়া, বাসা ভাড়া থেকে অনেক কিছুর দাম বাড়ার আশংকা রয়েছে । এতে সাধারণ মানুষের অনেক কষ্ট হবে। সরকারের কাছে অনুরোধ করব, এই মূল্যবৃদ্ধির আদেশ পুনর্বিবেচনা করার জন্য। নাগরিক আন্দোলন উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদ চায় সাধারণ মানুষ যেন কষ্টে না থাকে।

img-add

বিবৃতিতে ময়মনসিংহ জেলা নাগরিক আন্দোলন উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদ সভাপতি অ্যাডভোকেট আনিসুর রহমান খান ও সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুল আমিন কালাম আরো জানান, বর্তমান সরকারের দুর্বল মনিটরিং এর কারণে এবং সঠিক পরিসংখ্যানের অভাবে দেশে দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধি পাচ্ছে। পেয়াজ-রসুন, চাল, ডাল, গম, আদাসহ অন্যান্য নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য প্রতিবছর বিদেশ থেকে প্রচুর পরিমাণে আমদানি করে বিদেশে প্রচুর দেশী মুদ্রা চলে যাচ্ছে। তাই দেশে এসব পণ্য উৎপাদনের প্রয়োজনীয় কার্যকর পদক্ষেপের জন্য প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে জাতীয় মনিটরিং কমিটি ও টাস্কফোর্স গঠন করার আহবান জানিয়েছেন জেলা নাগরিক আন্দোলন উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদ।
ময়মনসিংহ জেলা নাগরিক আন্দোলন উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদের প্রচার সম্পাদক মোঃ নজরুল ইসলাম স্বাক্ষরিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে আরো জানানো হয়, আবার বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন বা বিইআরসি। অবশ্য এবার বাড়ছে শুধু দেশটির পল্লী বিদ্যুৎ সমিতিগুলোর গ্রাহকদের জন্য। আগামী মার্চ থেকে বাংলাদেশের গ্রামীণ এলাকার ব্যবহারকারীদের প্রতি ইউনিট বিদ্যুতের জন্য অতিরিক্ত ৩৬ পয়সা করে গুনতে হবে। বিইআরসি’র তথ্যমতে, এর ফলে পল্লী বিদ্যুৎ ইউনিট প্রতি বিদ্যুতের দাম দাঁড়াচ্ছে তিন টাকা ৭৫ পয়সা।
এতদিন পল্লী বিদ্যুৎ ব্যবহারকারীদের যাদের বিল ২১৫ টাকা থেকে ২১৯ টাকার মধ্যে হতো, এখন তাদের বিল হবে ২২০ থেকে ২২৫ টাকা।
অন্যদিকে যাদের বিল ৭৫৯ টাকা হতো সেটা বেড়ে হবে ৮০৩ টাকা। আর এতদিন ধরে যারা ১৯৫২ টাকা পর্যন্ত বিল পরিশোধ করতেন এখন তাদের ২০৬৬ টাকা পরিশোধ করতে হবে। মার্চ মাসের এক তারিখ থেকে নতুন এই দাম কার্যকর হবে। বিইআরসির চেয়ারম্যান দাবি করছেন যে, তারা বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধি করার ক্ষেত্রে মধ্যবিত্ত শ্রেণীকে গুরুত্ব দিয়েছেন। তিনি আরও জানিয়েছেন, বাংলাদেশে মোট উৎপাদিত বিদ্যুতের ৫৮ শতাংশই ব্যবহৃত হয় পল্লী বিদ্যুৎ সমিতিতে।

সর্বশেষ খবর



অন্যান্য খবর



সম্পাদক-প্রকাশক : রফিকুল ইসলাম আধার
উপদেষ্টা সম্পাদক : সোলায়মান খাঁন মজনু
নির্বাহী সম্পাদক : মোহাম্মদ জুবায়ের রহমান
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-১ : ফারহানা পারভীন মুন্নী
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-২ : আলমগীর কিবরিয়া কামরুল
বার্তা সম্পাদক-১ : রেজাউল করিম বকুল
বার্তা সম্পাদক-২ : মোঃ ফরিদুজ্জামান।
যোগাযোগ : সম্পাদক : ০১৭২০০৭৯৪০৯
নির্বাহী সম্পাদক : ০১৯১২০৪৯৯৪৬
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-১: ০১৭১৬৪৬২২৫৫
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-২ : ০১৭১৪২৬১৩৫০
বার্তা সম্পাদক-১ : ০১৭১৩৫৬৪২২৫
বার্তা সম্পাদক -২ : ০১৯২১-৯৫৫৯০৬
বিজ্ঞাপন : ০১৭১২৮৫৩৩০৩
ইমেইল : shamolbangla2013@gmail.com.

© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । ওয়েবসাইট তৈরি করেছে- BD iT Zone

error: Content is protected !!