প্রকাশকাল: 11 জুলাই, 2019

বন্ধন হত্যায় জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে শ্রীবরদীতে সংবাদ সম্মেলন

শ্রীবরদী (শেরপুর) প্রতিনিধি ॥ শেরপুর জেলা শহরের সজবরখিলা এলাকার ফৌজিয়া মতিন পাবলিক স্কুলের ছাত্রীনিবাসে আনুশকা আয়াত বন্ধন (১৪) নামে নবম শ্রেণির ছাত্রী হত্যার অভিযোগে হত্যাকারীদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে শ্রীবরদীতে সংবাদ সম্মেলন করেছে নিহত ছাত্রীর পরিবার। ১১ জুলাই বৃহস্পতিবার বিকেলে শহরের অস্থায়ী প্রেসক্লাব কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন নিহত ছাত্রীর বাবা উপজেলার পূর্ব ছনকান্দা গ্রামের বাসিন্দা আনোয়ার জাহিদ বাবু মৃধা। ওইসময় তিনি লিখিত বক্তব্যে বলেন, আমার মেয়ে খুবই সহজ সরল ও নরম নিরীহ প্রকৃতির। সে একজন মেধাবী ছাত্রী। ফৌজিয়া মতিন স্কুলে সে পড়াশোনা করত। ওই স্কুলের অধ্যক্ষ আবু তাহা সাদিসহ অজ্ঞাত নামা ব্যাক্তিরা রহস্যজনক কারণে পরিকল্পিতভাবে আমার মেয়েকে হত্যা করেছে। আমরা মিডিয়ার মাধ্যমে হত্যাকারীদের বিরুদ্ধে দ্রুত দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।
ওই সময় নিহত বন্ধনের মা শিউলী বেগম, ফুফু রুবি বেগম, ফুফা গোলাম রব্বানি সুলতান, ছোট বোন সাদায়াত বর্ণ ও জ্যাটা বিল্লার হোসেনসহ পরিবারের লোকজনসহ স্থানীয় প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।
উল্লেখ্য, ৬ জুলাই শনিবার দুপুরে শহরের সজবরখিলা এলাকার ফৌজিয়া মতিন পাবলিক স্কুলের ছাত্রীনিবাস থেকে শ্রীবরদী উপজেলা সদরের পূর্বছনকান্দা গ্রামের ওমান প্রবাসী আনোয়ার জাহিদ বাবুর মেয়ে আনুশকা আয়াত বন্ধনের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এরপরই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন পুলিশ সুপার কাজী আশরাফুল আজীম পিপিএম। ওই ঘটনায় ওইদিন রাতেই শিক্ষার্থী বন্ধনের বাবা আনোয়ার জাহিদ বাবু মৃধা বাদী হয়ে সদর থানায় ওইদিন মামলা দায়ের করেন। এদিকে মামলা গ্রহণের পরপরই পুলিশ অভিযান চালিয়ে প্রধান আসামি ফৌজিয়া মতিন পাবলিক স্কুলের পরিচালকসহ ৩ জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

আপনার মতামত দিন

XHTML: You can use these html tags: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <s> <strike> <strong>

error: Content is protected !!