রাত ১১:৪১ | শুক্রবার | ২৫শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | ১০ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

আন্তর্জাতিক আদালতে লড়তে হেগের পথে সু চি

শ্যামলবাংলা ডেস্ক : মিয়ানমারে রোহিঙ্গা মুসলিম সংখ্যালঘুদের ওপর সেনাবাহিনীর গণহত্যার অভিযোগের বিরুদ্ধে ১০ ডিসেম্বর মঙ্গলবার হেগের আন্তর্জাতিক ন্যায়বিচার আদালতে (আইসিজে) প্রথম শুনানি হবে। মিয়ানমারের ডিফ্যাক্টো সু চি এতে মিয়ানমার প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেবেন। আদালতের শুনানিতে উপস্থিত থাকতে হেগের উদ্দেশে রবিবার মিয়ানমার ছেড়েছেন সু চি।

img-add

এ ঘটনা আন্তর্জাতিক অঙ্গনে নোবেল শান্তি পুরস্কারজয়ী এ রাজনীতিবিদের ভাবমূর্তি আরও ক্ষুণ্ণ করবে বলে মনে করা হলেও দেশে তার সমর্থন আরও সুসংহত হচ্ছে। খবর রয়টার্সের। দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশটিতে সু চির পক্ষে একের পর এক সমাবেশ হয়েছে। ২০১৬ সালে শেষবার মিয়ানমারের এ ডিফ্যাক্টো নেত্রীর পশ্চিম ইউরোপ সফরে তাকে বরণ করা হয়েছিল গণতন্ত্রের মানসকন্যা হিসেবে। তার দেশে অর্ধশতকের সামরিক শাসনের অবসান ঘটিয়ে বেসামরিকদের হাতে রাজনৈতিক নেতৃত্ব তুলে দেয়ার মূল দায়িত্ব পালন করেছেন। ৩ বছর পর আগামী সপ্তাহে সু চি একই মহাদেশে ফিরবেন তার একসময়কার প্রতিদ্বন্দ্বী সেনাবাহিনীর ‘গণহত্যার’ পক্ষে সাফাই গাইতে।

২০১৭ সালের ২৫ অগাস্ট রাখাইনে নিরাপত্তা বাহিনীর বেশ কিছু স্থাপনায় ‘বিদ্রোহীদের’ কথিত হামলার পর রোহিঙ্গাদের গ্রামে গ্রামে শুরু হয় সেনাবাহিনীর অভিযান। সেই সঙ্গে শুরু হয় বাংলাদেশ সীমান্তের দিকে রোহিঙ্গাদের ঢল। গত ২ বছরে সাত লাখের বেশি রোহিঙ্গা প্রাণ বাঁচাতে বাংলাদেশে এসে আশ্রয় নেয়। তাদের কথায় উঠে আসে নির্বিচারে হত্যা, ধর্ষণ, জ্বালাও-পোড়াওয়ের ভয়াবহ বিবরণ, যাকে জাতিগত নির্মূল অভিযান বলে জাতিসংঘ।

রোহিঙ্গা নির্যাতনের বিচারে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে (আইসিসি) মিয়ানমারের বিরুদ্ধে নালিশ গেছে। মুসলিম রাষ্ট্রগুলোর জোট ওআইসি’র সমর্থনে আফ্রিকার দেশ গাম্বিয়া নভেম্বরে জাতিসংঘের আদালত আইসিজে’তে মামলা করেছে। গাম্বিয়া তাদের অভিযোগে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে রাখাইন রাজ্যে বসবাসরত রোহিঙ্গা মুসলমানদের নির্বিচারে হত্যা, ধর্ষণ এবং তাদের আবাসন ধ্বংসের কথা বলেছে। বৌদ্ধ সংখ্যাগরিষ্ঠ মিয়ানমার এসব অভিযোগ অস্বীকার করছে। তারা বলছে, গণহত্যা বা জাতিগত নিধনযজ্ঞ নয়, তাদের অভিযান নিরাপত্তা বাহিনীর টহল চৌকিতে হামলা চালানো বিদ্রোহী গোষ্ঠীগুলোর বিরুদ্ধে।
১০ ডিসেম্বরে আইসিজে’র ওই মামলার প্রথম শুনানি শুরু হচ্ছে। মিয়ানমারের ‘জাতীয় স্বার্থ রক্ষায়’ ওই মামলায় লড়তে কয়েকদিনের মধ্যেই সু চি নেদারল্যান্ডসের হেগের উদ্দেশ্যে রওনা হবেন বলে তার কার্যালয় নিশ্চিত করেছে।

Print Friendly, PDF & Email
এ সংক্রান্ত আরও খবর

অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ খবর



» নকলায় ট্রাক-সিএনজিচালিত অটোরিক্সার মুখোমুখি সংঘর্ষে যুবক নিহত, আহত ৪

» শেরপুরে পুলিশ-ম্যাজিস্ট্রেসী ভার্চুয়াল কনফারেন্স অনুষ্ঠিত

» শেরপুরে বিশিষ্ট সমাজসেবী ডালিয়ার ৭৮তম জন্মদিনে রক্তসৈনিকের পক্ষ থেকে সম্মাননা স্মারক প্রদান

» নালিতাবাড়ীতে বালু ব্যবসায়ীকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা

» নদী ভাঙন রোধ ও নদী শাসনে পরিকল্পিত কাজ করে যাচ্ছে সরকার ॥ ময়মনসিংহে পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী

» শেরপুরে পুরাতন ব্রহ্মপুত্র নদের খনন বিষয়ে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

» স্বর্ণের দাম ভরিতে কমলো ২৪৫০ টাকা

» কক্সবাজারের ৩৪ পুলিশ পরিদর্শককে একযোগে বদলি

» দেশে করোনায় আরও ২৮ মৃত্যু, শনাক্ত ১৫৪০

» শেরপুরে ৫০তম জন্মদিনে ফুলেল শুভেচ্ছায় অভিষিক্ত হলেন আ’লীগ নেতা আধার

» শেরপুর পৌরসভায় সড়কবাতি স্থাপন কাজের উদ্বোধন ॥ এলইডির আলোয় ঝলমলে হবে পৌর এলাকা

» সম্মানজনক পেশায় কর্মসংস্থানের সুযোগ চান শেরপুরের হিজড়ারা

» শেরপুরে স্কুলছাত্রী অপহরণ করে ধর্ষণের দায়ে যুবকের ৪৪ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড

» দাপুটে জয়ে ম্যানসিটির মৌসুম শুরু

» শেরপুরে সীমানা নিয়ে বিরোধে ভাগ্নের আঘাতে প্রাণ গেল মামীর

সম্পাদক-প্রকাশক : রফিকুল ইসলাম আধার
উপদেষ্টা সম্পাদক : সোলায়মান খাঁন মজনু
নির্বাহী সম্পাদক : মোহাম্মদ জুবায়ের রহমান
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-১ : ফারহানা পারভীন মুন্নী
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-২ : আলমগীর কিবরিয়া কামরুল
বার্তা সম্পাদক-১ : রেজাউল করিম বকুল
বার্তা সম্পাদক-২ : মোঃ ফরিদুজ্জামান।
যোগাযোগ : সম্পাদক : ০১৭২০০৭৯৪০৯
নির্বাহী সম্পাদক : ০১৯১২০৪৯৯৪৬
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-১: ০১৭১৬৪৬২২৫৫
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-২ : ০১৭১৪২৬১৩৫০
বার্তা সম্পাদক-১ : ০১৭১৩৫৬৪২২৫
বার্তা সম্পাদক -২ : ০১৯২১-৯৫৫৯০৬
বিজ্ঞাপন : ০১৭১২৮৫৩৩০৩
ইমেইল : shamolbangla2013@gmail.com.

© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । ওয়েবসাইট তৈরি করেছে- BD iT Zone

  রাত ১১:৪১ | শুক্রবার | ২৫শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | ১০ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

আন্তর্জাতিক আদালতে লড়তে হেগের পথে সু চি

শ্যামলবাংলা ডেস্ক : মিয়ানমারে রোহিঙ্গা মুসলিম সংখ্যালঘুদের ওপর সেনাবাহিনীর গণহত্যার অভিযোগের বিরুদ্ধে ১০ ডিসেম্বর মঙ্গলবার হেগের আন্তর্জাতিক ন্যায়বিচার আদালতে (আইসিজে) প্রথম শুনানি হবে। মিয়ানমারের ডিফ্যাক্টো সু চি এতে মিয়ানমার প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেবেন। আদালতের শুনানিতে উপস্থিত থাকতে হেগের উদ্দেশে রবিবার মিয়ানমার ছেড়েছেন সু চি।

img-add

এ ঘটনা আন্তর্জাতিক অঙ্গনে নোবেল শান্তি পুরস্কারজয়ী এ রাজনীতিবিদের ভাবমূর্তি আরও ক্ষুণ্ণ করবে বলে মনে করা হলেও দেশে তার সমর্থন আরও সুসংহত হচ্ছে। খবর রয়টার্সের। দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশটিতে সু চির পক্ষে একের পর এক সমাবেশ হয়েছে। ২০১৬ সালে শেষবার মিয়ানমারের এ ডিফ্যাক্টো নেত্রীর পশ্চিম ইউরোপ সফরে তাকে বরণ করা হয়েছিল গণতন্ত্রের মানসকন্যা হিসেবে। তার দেশে অর্ধশতকের সামরিক শাসনের অবসান ঘটিয়ে বেসামরিকদের হাতে রাজনৈতিক নেতৃত্ব তুলে দেয়ার মূল দায়িত্ব পালন করেছেন। ৩ বছর পর আগামী সপ্তাহে সু চি একই মহাদেশে ফিরবেন তার একসময়কার প্রতিদ্বন্দ্বী সেনাবাহিনীর ‘গণহত্যার’ পক্ষে সাফাই গাইতে।

২০১৭ সালের ২৫ অগাস্ট রাখাইনে নিরাপত্তা বাহিনীর বেশ কিছু স্থাপনায় ‘বিদ্রোহীদের’ কথিত হামলার পর রোহিঙ্গাদের গ্রামে গ্রামে শুরু হয় সেনাবাহিনীর অভিযান। সেই সঙ্গে শুরু হয় বাংলাদেশ সীমান্তের দিকে রোহিঙ্গাদের ঢল। গত ২ বছরে সাত লাখের বেশি রোহিঙ্গা প্রাণ বাঁচাতে বাংলাদেশে এসে আশ্রয় নেয়। তাদের কথায় উঠে আসে নির্বিচারে হত্যা, ধর্ষণ, জ্বালাও-পোড়াওয়ের ভয়াবহ বিবরণ, যাকে জাতিগত নির্মূল অভিযান বলে জাতিসংঘ।

রোহিঙ্গা নির্যাতনের বিচারে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে (আইসিসি) মিয়ানমারের বিরুদ্ধে নালিশ গেছে। মুসলিম রাষ্ট্রগুলোর জোট ওআইসি’র সমর্থনে আফ্রিকার দেশ গাম্বিয়া নভেম্বরে জাতিসংঘের আদালত আইসিজে’তে মামলা করেছে। গাম্বিয়া তাদের অভিযোগে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে রাখাইন রাজ্যে বসবাসরত রোহিঙ্গা মুসলমানদের নির্বিচারে হত্যা, ধর্ষণ এবং তাদের আবাসন ধ্বংসের কথা বলেছে। বৌদ্ধ সংখ্যাগরিষ্ঠ মিয়ানমার এসব অভিযোগ অস্বীকার করছে। তারা বলছে, গণহত্যা বা জাতিগত নিধনযজ্ঞ নয়, তাদের অভিযান নিরাপত্তা বাহিনীর টহল চৌকিতে হামলা চালানো বিদ্রোহী গোষ্ঠীগুলোর বিরুদ্ধে।
১০ ডিসেম্বরে আইসিজে’র ওই মামলার প্রথম শুনানি শুরু হচ্ছে। মিয়ানমারের ‘জাতীয় স্বার্থ রক্ষায়’ ওই মামলায় লড়তে কয়েকদিনের মধ্যেই সু চি নেদারল্যান্ডসের হেগের উদ্দেশ্যে রওনা হবেন বলে তার কার্যালয় নিশ্চিত করেছে।

Print Friendly, PDF & Email
এ সংক্রান্ত আরও খবর

সর্বশেষ খবর



অন্যান্য খবর



সম্পাদক-প্রকাশক : রফিকুল ইসলাম আধার
উপদেষ্টা সম্পাদক : সোলায়মান খাঁন মজনু
নির্বাহী সম্পাদক : মোহাম্মদ জুবায়ের রহমান
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-১ : ফারহানা পারভীন মুন্নী
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-২ : আলমগীর কিবরিয়া কামরুল
বার্তা সম্পাদক-১ : রেজাউল করিম বকুল
বার্তা সম্পাদক-২ : মোঃ ফরিদুজ্জামান।
যোগাযোগ : সম্পাদক : ০১৭২০০৭৯৪০৯
নির্বাহী সম্পাদক : ০১৯১২০৪৯৯৪৬
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-১: ০১৭১৬৪৬২২৫৫
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-২ : ০১৭১৪২৬১৩৫০
বার্তা সম্পাদক-১ : ০১৭১৩৫৬৪২২৫
বার্তা সম্পাদক -২ : ০১৯২১-৯৫৫৯০৬
বিজ্ঞাপন : ০১৭১২৮৫৩৩০৩
ইমেইল : shamolbangla2013@gmail.com.

© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । ওয়েবসাইট তৈরি করেছে- BD iT Zone

error: Content is protected !!